আসুন জেনে নেই নখ কাটার কিছু নিয়ম

নখ আমাদের শরীরের খুব ক্ষুদ্র একটা অংশ। কিন্তু এই নখ নিয়েই মেয়েরা অনেক ধরণের স্টাইল করতে ভালোবাসে। বিভিন্ন শেপে নখ কেটে নখকে করে তোলে আকর্ষণীয়। কিন্তু নখ বেশি বড় হয়ে গেলে ভেঙে যাওয়ার ভয় থাকে। তাই বেশি বড় হওয়ার আগেই নখ কেটে ফেলা উচিত। অনেকেই নখ কাটতে গিয়ে বিপত্তি ঘটায়। নখ এতো বেশী গভীর করে কেটে ফেলে যার কারণে নখের নিচের নরম চামড়া বের হয়ে পড়ে। কখনও কখনও নখ বেশী কেটে ফেলার সাথে সাথে নখের নিচের চামড়া কেটে গিয়ে রক্ত বের হয়। তাই নখ কাটার সময় সাবধানে কাটা উচিত।

নখ কাটার আগে হালকা গরম পানিতে কিছুক্ষণ হাত ও পা ভিজিয়ে রাখলে নখগুলো নরম হবে। এতে করে নখ সহজে আপনার ইচ্ছামতো কাটতে পারবেন। কখনই নখ খুব বেশী গভীরে কাটা ঠিক না । নখ কাটার জন্য ধারালো নেইল কাটার ব্যবহার করতে হবে। কখনই ভোঁতা কোন  নেইল কাটার অথবা ব্লেড দিয়ে নখ কাটাবেন না।
নখ শুকিয়ে যাওয়ার পর নেইল শেপার দিয়ে পছন্দ মতো শেইপ করে নিন। নখ ভেজা অবস্থায় কখনও নেইল শেপার ব্যবহার করবেন না, এতে নখ খাঁজ কাটা হয়ে যাবে এবং শুঁকানোর পর নখ অমসৃণ হয়ে যাবে এবং ভেঙে যাবে। নেইল শেপার দিয়ে এমন ভাবে শেইপ করতে হবে যেন নখের মাথা মসৃণ হয়, না হলে অমসৃন নখ বিভিন্ন জায়গায় যেমন কাপড়ে, চুলে লেগে নখ ভেঙে যেতে পারে।
মায়েরা যখন তাঁদের বাচ্চাদের নখ কাটেন তখন একটু বেশী সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। বাচ্চাদের নখ হয় নরম এবং পাতলা। একদম ছোট বাচ্চাদের নখ কাটার জন্য ভালো সময় যখন ওরা ঘুমিয়ে থাকে। কারণ জেগে থাকলে নড়াচড়ার মাঝে নখ কাটতে গেলে চামড়াসহ কেটে যেতে পারে । বাচ্চাদের নখ খুব দ্রুত বাড়ে, তাই প্রতি সপ্তাহে নিয়মিত নখ কেটে দিতে হবে।